Search
  • md imran

*** জাহান্নামে যাওয়ার কারন

জাহান্নামে যাওয়ার সাধারণ কিছু কারণ যা কিয়ামতেরদিন অসাধারণ হয়ে দাঁড়াবে।

________________________________

#ভিক্ষুক-সে ভন্ড হোক বা আসল হোক সে যদি আল্লাহর দোহাই দিয়ে কিছু চায় তবে আপনার কিছু হলেও দিতে হবে। এটা রাসুল (সাঃ) এর নির্দেশ।

[আবূ দাউদ-১৬৭২, নাসাঈ-২৫৬৬, আদাবুল মুফরাদ-২১৬]


◾. #স্ত্রী বা শ্বশুর বাড়ীর লোকদের প্ররোচনায় নিজের বাবা-মাকে অবহেলা করেছেন। আপনি এখনও জাহান্নামে যাননি কারণ আপনি এখনও মরেননি। [নাসাঈ-৫৬৮৮, মিশকাত- ৪৯৩৩, মুসনাদে আহমাদ: ২/৬৯]


#অফিসে_কাজে ফাঁকি দেন। মাস গেলে বেতন নিচ্ছেন। আপনার এই ফাঁকিবাজির খেসারত একদিন আপনার নেক আমল দিয়ে পূরণ করে দিতে হবে। [হাদিসে কুদসি-১৪২, তিরমিযী-২৪১৮]


◾. #ধূমপান, জরদা বা যে কোনও নেশাদার দ্রব্য দিয়ে নেশা করেছেন। পরবর্তী ৪০ দিন আল্লাহ আপনার উপর নারাজ থাকবেন। [ইবনু মাজাহ-৩৩৭৭, তিরমিযী-১৮৬২]


#নিয়মিত_ওয়াদা ভঙ্গ করেন। আপনি মুনাফেক। জানান্নামের উদ্বোধন হবে মুনাফেক এবং ভ্রান্ত হুজুর দিয়ে। কাফের, মুশরিক দিয়ে নয়।

[সূরা নিসা-৪/১৪৫, বুখারী-৩৩]


◾. কর্মচারীকে চুক্তিঘন্টার চেয়ে অতিরিক্ত খাটিয়েছেন। বিনিময়ে কিছু দেননি। আপনাকে দিতে হবে একদিন। হয়ত আপনার আমলনামার পুরোটাই।

[হাদিসে কুদসি-১৪২, তিরমিযী-২৪১৮, মিশকাত-৩৯৯৭]


◾. দলীয় দাপটে এক ফুট জায়গা অন্যায়ভাবে দখল করেছেন। আযাবের ফেরেস্তারা শুধু আপনার মৃত্যুর জন্য অপেক্ষা করছে। [বুখারী-৩১৯৮, তিরমিযী-১৪১৮]


◾. দান করার সামর্থ আছে কিন্তু দান করেন না। আপনাকে খুবই ভয়াবহ মৃত্যু যন্ত্রণা দেয়া হবে।

[সূরা মুনাফিকুন-৬৩/১০, সূরা বাকারা-২/২৫৪, বুখারী-১৪১৯]


◾. কোনও ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান থেকে ঋণ নিয়েছেন কিংবা চাঁদাবাজি করেছেন বা ঘুষ নিয়েছেন কিন্তু ফেরত দেননি। আমলনামা ভারী করুন। কারন এটা দিয়েই একদিন শোধ করতে হবে।

[ইবনু মাজাহ-২৪১০, সহিহুল জামে-৩৬১২, মিশকাত-৩৯৯৭]


◾. রাসুল (সাঃ) এর দেখানো পদ্ধতি বাদ দিয়ে পীর সাহেব বা ভ্রান্ত আলেমের দেখানো পদ্ধতিতে আমল করছেন। মনে রাখবেন রাসুলের সুপারিশ আপনার জন্য নয়। আজই আপনার নিয়মিত করা আমলগুলো কুরআন-হাদিসের সাথে মিলিয়ে নিন।

[সূরা নিসা-৪/৮০, সূরা মুহাম্মদ-৪৭/৩৩, সূরা হুজুরাত-৪৯/১, বুখারী-২৬৯৭, মুসলিম-১৭১৮, মিশকাত-১৪০]


◾ ঘরে কুরআন কিনে ফেলে রেখেছেন। পড়েন না। এই কুরআন একদিন আপনার বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিবে।

[সূরা ফুরকান-২৫/৩০]


◾. মহিলারা স্বামী এবং শ্বশুরবাড়ীর লোকদের বদনাম করছেন। আপনার স্বামী এবং শ্বশুরবাড়ীর লোকেরা আপনার ঘাড়ে পা দিয়ে একদিন জান্নাতে চলে যাবে। আপনি থাকবেন অগ্নিময় জাহান্নামে।

[সূরা হুমাযা-১০৪/১, মুসলিম-১৪২, মিশকাত-৪৮২৩, তিরমিযী-২৪১৮]

____________________

উপরোক্ত গুনাহসমূহের মধ্যে যেগুলো আল্লাহর সাথে সম্পৃক্ত সেগুলো তাওবা করলে ক্ষমা হবে ইনশাআল্লাহ। কারন আল্লাহ বলেনঃ

“নিশ্চয় আল্লাহ তাকে ক্ষমা করেন না, যে তাঁর সাথে কাউকে শরীক করে। এছাড়া যাকে ইচ্ছা, ক্ষমা করেন। যে আল্লাহর সাথে শরীক করে সে সুদূর ভ্রান্তিতে পতিত হয়।

[সূরা নিসা: ৪/১১৬]

:

আর গুনাহ যদি বান্দার সাথে সম্পৃক্ত হয় তবে তা বান্দার কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। অন্যথায় আখিরাতে সে মহাবিপদে পড়বে।।।

আল্লাহ পাক আমাদের কে জানার বুঝার মানার

তৌফিক দান করুন

2 views0 comments

Recent Posts

See All

***আসল নকল***

জহুরী...... এক স্বর্ণকারের মৃত্যুর পর তার পরিবারটা বেশ সংকটে পড়ে গেল। খাদ্য-বস্ত্রে দেখা দিল চরম অভাব। স্বর্ণকারের বিধবা স্ত্রী তার বড় ছেলেকে একটা হীরের হার দিয়ে বললো--এটা তোর কাকুর দোকানে নিয়ে যা, বল

01128865776

©2020 by Md.imran khan. Proudly created with Wix.com

This site was designed with the
.com
website builder. Create your website today.
Start Now